৬নং ঈশ্বরদিয়া ইউনিয়ের চর বরবিলা গ্রামে সন্ত্রাসী হামলায় আহত আওয়ামীলীগ নেতা ইব্রা মড়ল সহ ৫জন

গোলাম কিবরিয়া পলাশ, ময়মনসিংহ জেলা প্রতিনিধি: ময়মনসিংহের সদর উপজেলার ৬নং ঈশ্বরদিয়া ইনিয়নের চর বরবিলা গ্রামে পূর্ব সুত্রুতার জের ধরে মারামারী ও সন্ত্রাসী হামলায় আহত ৫জন। সরেজমিনে গিয়ে বিষয়টি জানতে পারি মোঃ ইব্রাহীম মড়ল (৭০) উনি এলাকার আওয়ামীলগের নেতা। এলাকায় দির্গ দিন ধরে মানুষজনের দেন দরবার মাতাব্বরী করে আসছেন। উনি বর্তমানে বয়স্ক তাই অসহায়।

খুজঁ নিয়ে জানি উনি সৎ ও নিষ্ঠাবান বঙ্গবন্ধুর আদর্শবান একজন নেতা। উনি আওয়ামীলীগ দল না শুধু জাতীর জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মজিবুর রহমান ও উনার পরিবারের লোকদেরকে মনে প্রাণে ভালবাসেন। উনি বর্তমানে হত দরিদ্র অসহায় অবস্থায় দিন কাটাচ্ছে তাও তিনি সরকারী কোন দানন নিতে প্রস্তুত নন। উনি নিতিবান একজন লোক।

এই মূহুর্তে তিনি একটি সন্ত্রাসী গুষ্ঠির কাছে জিম্মি অবস্থায় আছে। তাই প্রশসনের উর্দতন কর্মকর্তাদের কাছে উনার আকুল আবেদন, উনার পরিবারবর্গদেরকে সন্ত্রাসী গুষ্ঠীর মৃত্যুর হুমকি থেকে বাচাঁর জন্য পথ করে দেয়ার। গত ১৩. ০৪.২০২০ ইং তারিখ আনুমানিক বিকাল ৫ ঘটাকার সময় মামলায় উল্লেখিত সন্ত্রাসী গুষ্ঠীগুলো বাদী হাবীবুর রহমানসহ তার বাবা ইব্রাহীম মড়ল, তার মা, ভাই বৌ, বোন, বড় ভাই সহ আরও কয়েকজনকে দেশীয় অস্ত্র, রান দাঁ, চাপাতি, বডি, সলকি, লাঠিসুটা নিয়ে চড়াও হয়ে অতর্কিত হামলা চালায়। হামলায় বাদী হাবিবুর রহমান ও তার বাবা ইব্রাহীম মড়ল সহ আরও কয়েকজন আহত হয়।

এতে ময়মনসিংহ কোতওয়ালী মডেল থানায় একটি মামলা হয়। মামলা নং- ১৯ কোডঃ নং ১৮৬০। মামলায় দ্বারা সমুহ- ১৪৩/৪৪৭/৩২৩/৩২৪/ ৩২৬/ ৩০৭/৩৫৪/৩৭৯/১১৪/৫০৬/৩৪। মামলায় একজন আসামী গ্রেফতার করা হয়ছে বাকি আসামী গুলি এখনো ধরা ছোয়ার বাহিরে। তারা গুলা ফুলিয়ে এলাকায় গুরছে। পুলিশ বাকী আসামী গুলিকে ধরার কোন পদক্ষেপ না নিয়ে বিবাদী পক্ষের একটি কাউন্টার মামলা হাতে নেয়। তাই ইব্রাহীম মড়ল প্রশাসনের সু দৃষ্টি কামনা করেন। বাদী ইব্রাহীম মড়লের ছোট ছেলে হাবিবুর রহমানের করা মামলায় আসামীগনের তালিকা নিম্নে তুলে ধরা হলো।

১. জমশেদ আলী (৫০) পিতা -মৃত: হরমুজ আলী, ২. জহুর আলী, (৩৫) পিতা -মৃত: হরমুজ আলী, ৩. ফজর আলী (৩০) পিতা -মৃত: হরমুজ আলী, ৪. রাজব আলী (৪৫) পিতা- মৃত: মুমিন আলী, ৫. জালাল উদ্দীন (৪০) পিতা- মৃত: আঃ আজিজ মুন্সী, ৬. মাসুদ মিয়া (৩০) পিতা- জালাল উদ্দীন, ৭. বাছেদ আলী, (২৮) পিতা- জালাল উদ্দীন, ৮. মোস্তাকিম মিয়া (৩০) পিতা- জমশেদ আলী, ৯. জামান (২৭) পিতা- জমশেদ আলী, ১০. আঃ রশীদ (৪০) পিতা- মৃত: আঃ কুদ্দুছ, ১১. মোশারফ হোসেন (৩০) পিতা- মৃত: আঃ কুদ্দুছ, ১২. আঃ হক হরুফে হক মিয়া (৪০) পিতা-মোঃ কলিম উদ্দীন, ১৩. রিপন মিয়া (৩৫) পিতা-মোঃ কলিম উদ্দীন, ১৪. জিয়ারুল (৩০) পিতা – রাজব আলী, ১৫. সাইফুল (৩৮) পিতা- কাজিম উদ্দীন, অভয়েই সাং চর বরবিলা পোঃ চর খরিচা, উপজেলাঃ সদর, জেলাঃ ময়মনসিংহ।

এই ১৫ জন আসামী ছাড়াও আরও ৪/৫ জন অজ্ঞাত আসামী রয়েছে বলে জানতে পারি। উল্লেখিত আসামীদের ধরে জেল হাজতে পেরন করার জন্য প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্শণ করেন বাদী পক্ষ।