প্রবাসীর স্ত্রীর সঙ্গে রাজমিস্ত্রির পরকীয়া, আপত্তিকর অবস্থায় আটক।

নিউজ ডেস্ক: কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার তালবাড়িয়া গ্রামের মোঃ শহিদুলের মেয়ে কণা খাতুনের ১৩ বছর আগে পাশের বাড়ির মোঃ রুনজানের ছেলে মোঃ লাভলুর সাথে বিবাহ হয়। গত শুক্রবার (২৯ মে-২০২০) রাত ১১ টার সময় এক সন্তানের জননী কণা খাতুনের নিজ ঘর থেকে রাজমিস্ত্রির অনৈতিক কাজে লিপ্ত থাকার সময় আটক করে স্থানীয়রা।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, কুষ্টিয়া জেলার মিরপুর থানার বিজনাগর গ্রামের রাজমিস্ত্রি মিঠু প্রবাসির স্ত্রীর প্রেমিকা কণার বাড়ি নির্মাণ কাজ করেছেন আনুমানিক ১ বছর আগে, তখন থেকেই প্রবাসীর স্ত্রীর সঙ্গে পরকীয়া প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। কণার একটি ১২ বছরের মেয়ে আছে নাম লভলী খাতুন।

এবিষয়ে লাভলুর বড় ভাবি মিনু জানান কণাকে অনেক সময় ধরে ফোনে কথা বলতে দেখায়, আমি জিজ্ঞাসা করলে বলে লাভলীর আব্বার সঙ্গে কথা বলছি, আমি মনে করি হয়তোবা লাভলীর আব্বার সঙ্গে কথা বলছে, আবার দুই এক দিন পর পরই দেখা যায় এই মিস্ত্রি এখানে আসে।

এ নিয়ে আমাদের মনে সন্দেহ জেগে ওঠে। এর আগেও একদিন এসেছিল ভোররাত্রে টের পেয়ে আমরা আটকাতে পারিনি। এ বিষয়ে কণার বাবা-মাকে বিষয়টি জানিয়ে ছিলাম কিন্তু কণার বাবা-মা বলেছিলেন এটা সম্পূর্ণ মিথ্যা, তোমরা আমার মেয়ে মান নষ্ট করার জন্য এগুলো বলছো। তারপরে থেকেই আমরা হাতেনাতে ধরার জন্য অপেক্ষায় থাকি, রাজমিস্ত্রির মিঠু ২৪ রোজার দিনে এসেছিল আমাদের উপস্থিতি টের পেয়ে সেই দিনে ঘরে ঢুকতে পারেনি।

শুক্রবার সকাল থেকেই প্রায় সময় ফোনে কথা বলতে দেখা যায় কণাকে তখনি সন্দেহ হল, আজ কিছু একটা হবে। আমার দেবর লাভলুর সঙ্গে কথা বলে জানতে পারি আজকে সারাদিন আমার দেবর লাভলু তার স্ত্রী কণার সাথে কথা বলেনি কিন্তু কণা কার সাথে কথা বলছিল, এতে সন্দেহ টা আরো বেড়ে গেল।

এবিষয়ে লাভলুর বড় ভাই শফি মন্ডল জানান, আমি বাড়িতে ছিলাম না, সন্ধ্যার সময় বাড়িতে আসার পথে দেখলাম রাজমিস্ত্রি মিঠু আমার বাড়ির সামনে দিয়ে চলে গেল। বিষয়টি কণার বাবাকে আবারো জানানো হলে কণার বাবা তেলেবেগুনে জ্বলে উঠে। এরপরে রাত ১১ সময় কণার নিজ ঘর থেকে দু’জনকে আপত্তিকর অবস্থায় আটক করেছে স্থানীয়রা।

এ বিষয়ে কণার বাবার শহিদুলের কাছে জনতে চাইলে তিনি বলেন আমি কিছু বলতে চাচ্ছিনা আমার কিছুই বলার নেই।

স্থানীয় ইউপি সদস্য মোঃ আলীম বলেন, ঘটনাটি সত্য, আমাকে ফোন দেয়ার সঙ্গে সঙ্গে আমি এসে দেখলাম স্থানীয় লোকজন সবাই আছে আমিও এসে দেখি ছেলে আর মেয়ে এক ঘরে আছে এখনো রাজমিস্ত্রি মিঠু জানান আমাদের পরকীয়া প্রেমের সম্পর্ক ১বছর ধরে চলছে, কণা আমাকে মাঝে মাঝে মোবাইল ফোনে আসতে বলে কিন্তু আমি আসতে নাচাইলে আমাকে বিভিন্ন ভাবে ভয়-ভীতি দেখাতে থাকে এমনকি আমার স্ত্রীকে জানাবে বলে, আমাকে আসতে বাধ্য করে কণা।