নোয়াখালীর ওদার হাটে সামান্য বৃষ্টিতেই পানি জমে যায় ফলে দুর্ভোগ জন সাধারনের।

আবুল হাছানাত বাবুল নোয়াখালী: নোয়াখালী সদর পশ্চিম অঞ্চলের অত্যান্ত প্রাচীন ও ঐতিহ্যবাহী বাজার উদয় সাধুর হাট (ওদার হাট) বাজারে সামান্য বৃষ্টি হলে বাজারের উপরে পানি জমে যায় ফলে স্হানীয় ব্যাবসায়ীরা সহ জনসাধারন চরম দুর্ভোগ পোড়াতে হয়।

স্হানীয় সুএে যানা যায় গত কয়েক বছর যাবৎ বষা মৌসুমে কিংবা যে কোন প্রাকৃতিক দুযৌগে সামান্য বৃষ্টি হলে বাজারে পানি উঠে যায় সেই পানি আবার প্রাকৃতিক নিয়মেই শুকাতে কিংবা নামতে হয় বিষয়টি যেন দেখার কেউ নেই, চাহিদা অনুযায়ী ক্রেতা না থাকয় প্রতিদিন ব্যবসায়িক লোক জন বড় ধরনের লোকসান গুনতে হচ্ছে।

এই ভাবে চলতে থাকলে সুনামধন্য এই বাজারের মান ক্ষুণ্ণ হয়ে অচিরেই ব্যবসায়িক দিক দিয়ে ধস নেমে আসতে পারে বলে মনে করেন ব্যাবসায়ী ও স্হানীয় জনসাধারণ। স্হানীয়রা আরো জানান বেশি বেশি পানি জমার কারণে মানুষ বাজারের রাস্তার উপরে ঝাল দিয়ে মাছ ধরে ।

ওদার হাট (বাজারের) পানি সংক্রান্ত বিষয়ে জানতে চাইলে স্হানীয় চরমটুয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ওদার হাট বাজারের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি কামাল উদ্দিন বাবলু বলেন বাজারের পানি নেমে যাওয়ায় জন্য পাসের খালের সাতে সংযুক্ত যেই ড্রেন গুলো ছিলো সেগুলো যে যার মত করে পারছে নিজ নিজ নামে খতিয়ান করে মালিকানা করে নিয়েছে যার কারণে পানি নামার রাস্তা বন্ধ হয়ে গেছে এবং বাজারে পানি জমে যায়।

পানি জমার কারণে ব্যাবসায়ী সহ সাধারণ মানুষের সমস্যা হচ্ছে যার জন্য আমি সর জমিনে গিয়ে দেখে এসেছি এবং আগামী সাত দিনের মধ্যে বিকল্প পথে জমানো পানি গুলো সরানোর ব্যাবস্হা করে দিব।