দশমিনা উপজেলায় লবনের দাম বাড়ার কথা গুজব সামাজিক সচেতনতা মূলক প্রচার।


উপজেলা প্রতিনিধি: ১৯ নভেম্বর দপুর ১২.০০ ঘটিকা থেকে হঠাতৎ করে দশমিনা খুরচা ও পাইকারি বাজারে লবন কেনার ভীর। দোকানি ভীর সামলাতে বেগ পেতে হয়। হঠাতৎ লবন কেনার চাহিদা দেখে ক্রেতাকে জিঞ্জাসা করলে তিনি বলেন ঢাকা থেকে ফোন করেছে লবনের দাম ১০০টাকা কেজি তাই ৫ প্যাকেট কিনলাম।

দশমিনা বাজারের খুরচা ও পাইকারি দোকান গুরে দশমিনা উপজেলার প্রতিষ্ঠিত পাইকারি ও খুরচা ব্যাবসায়ী আলহাজ্ব কামাল হেসেন বলেন দুপুর থেকে হঠাতৎ করে দোকানে লবনের জন্য ক্রেতাদের ভীর কেন কি কারনে আমার যানা নেই, কাউকে জিঞ্জাসা করলে কিছুই বলেনা। তিনি বলেন আমি গত সপ্তাহে লবনের প্রতি কেজি প্যাকেট বিক্রি করেছি ৩৫ টাকা আজও তাই।

দশমিনা উপজেলার খুরচা ও পাইকারি দোকান মালিক গন বলেন আমরা সপ্তাহের সোমবার কালাইয়া থেকে পাইকারি মালামাল কিনে আনি লবনের দাম বাড়ছে কি না তা যানা নেই ২-৩ ঘন্টার মধ্যে আমার লবন বিক্রি হয়ে গেছে, তারা বলেন এটা গুজব, বানোয়াট ও বিত্তিহীন কথা। লবনের দাম গত সপ্তাহে যা ছিলো আজও তাই আছে।

এই গুজবের খবর পেয়ে অফিসার ইনচার্জ দশমিনা থানা এস এম জালাল উদ্দিন,ওসি তদন্ত দশমিনা থানা মোঃ আনোয়ার হোসেন দশমিনা উপজেলার বাজারে বাজারে, রাস্তার মোরে সামাজিক সচেতনতা মূলক প্রচারনা চালান, তিনি বলেন লবনের দাম শিথিল আছে কোন প্রকার দাম বাড়েনি কেউ এরকম কথা বললে তাকে দরিয়ে দিবেন।

এটা একটি কুচক্রি মহলের অপোপ্রচার,আমরা মনিটারিং করছি কে এই গুজব প্রচার করেছে এবং কোন ব্যবসায়ী লবনের দাম বেশি রাখলে আমাদের অবহীত করবেন তৎক্ষনিক ব্যবস্হা গ্রহন করবো।