চলমান সংকটকে মোকাবেলা করে স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস পালিত


বোরহানউদ্দিন (ভোলা) প্রতিনিধি: চলমান সংকটকে মোকাবেলা করে দ্বীপ জেলা ভোলার বোরহানউদ্দিনে উপজেলা প্রশাসন কর্তৃক ৪৯ তম স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস পালন করা হয়। বোরহানউদ্দিন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত ) মোঃ বশির গাজীর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোঃ আবুল কালাম।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বোরহানউদ্দিন থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মু. এনামুল হক। বিশ্বব্যাপী যখন করোনা ভাইরাস (কভিড ১৯) মহামারির সংক্রমণে বিশ্ব মানবতা চরম বিপর্যস্ত, বাংলাদেশও যার করাল থাবা থেকে মুক্ত নয়। ঠিক সেই সময়ে বাংলাদেশ মুজিববর্ষ তথা এক গুরুত্বপূর্ণ সময় অতিবাহিত করার কথা থাকলেও সরকারের উর্ধতন কর্তৃপক্ষ বছরের নানান অনুষ্ঠানমালায় শিথিলতা নিয়ে আসেন।

তারই ধারাবাহিকতায় ২৬ মার্চ এর পূর্ব নির্ধারিত কর্মসূচি বাতিল করে জাতির মর্যাদায় এবং বীর শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধাশীল হয়ে উপজেলা প্রশাসন খুব সংক্ষিপ্ত অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। এতে ছিলো জাতীয় পতাকা উত্তোলন এবং বীর শহীদদের প্রতি পুলিশ বাহিনী কর্তৃক সশ্রদ্ধ সালাম প্রদর্শন। সরকার কর্তৃক ২৬ মার্চ থেকে ০৪ এপ্রিল পর্যন্ত সাধারণ ছুটি ঘোষণা থাকলেও উপজেলা প্রশাসনের বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন।

বিগত বছরগুলোর ন্যায় উপস্থিত হতে পারেনি বিভিন্ন রাজনৈতিক ও সামাজিক পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ, বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক- শিক্ষার্থী ও সর্বসাধারন। প্রসঙ্গত ১৯৭১ সালের ২৫ মার্চ কালো রাতে পাক হানাদার বাহিনীরা নিরস্ত্র বাঙালির উপর ঝাপিয়ে পড়ে।

শিক্ষক বুদ্ধিজীবীসহ অসংখ্য জ্ঞানী গুণীকে হত্যা করা হয়। এক রাতের হত্যাকান্ডে বাদ যায় নি নারী শিশু আবাল বৃদ্ধা বণিতা। গ্রেফতার করা হয় বঙ্গবন্ধু শেখ মজিবুর রহমান কে। গ্রেফতার কালে জাতির পিতা বাঙালির জন্য লিখে যান স্বাধীনতার এক মহান বার্তা। ২৬ মার্চ ১৯৭১বঙ্গবন্ধুর পক্ষে বাংলাদেশের মহান স্বাধীনতার ঘোষনা দেয়া হয়।